পঞ্চগড়ে লকডাউন অমান্য করে ব্যবসায়ীদের বিক্ষোভ

মোঃ তোতা মিয়া বিভাগীয় ব্যুরো প্রধান রংপুর :

 

সারাদেশের মতো পঞ্চগড়েও শুরু হয়েছে এক সপ্তাহের লকডাউন। তবে প্রথমদিন দোকানপাট খোলা রাখার দাবিতে বিক্ষোভ করেছেন ব্যবসায়ীরা। সোমবার বিকেল ৫ টার সময় পঞ্চগড় শেরেবাংলা পার্কে। দোকানপা ট খোলা রাখার দাবিতে বিক্ষোভ শুরু করেন তারা । এসময় প্রায় পৌনে এক ঘন্টাব্যাপী সড়কে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ ও হট্টগোল করতে থাকেন ।

 

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ও নির্বাহি ম্যাজিস্ট্রেটের সাথে ধাক্কা ধাক্কি হয় । পরে ব্যবসায়ীদের সাথে কথা বলে আন্দোলন থেকে বিরত থাকার নির্দেশ দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ।

 

এরপর তারা আন্দোলন স্থগিত করে চলে যান ব্যবসায়ী। এ সময় ব্যবসায়ী নেতারা জানান, কিছু দোকান খোলা থাকার কারণে ভ্রাম্যমাণ এসে জরিমানা পরিস্থিতি নেন এ সময় অপমান অপদস্ত করলে আমাদের মাঝে ক্ষোভ সৃষ্টি হয় । এতে আমরা বিক্ষোভ করতে বাধ্য হই । ম্যাজিস্ট্রেট আন্দোলন স্থগিত করে দিলও তবে দাবি মানা না হলে ফের আন্দোলনে যাবেন বলেও জানালেন তারা । এসময় স্বাস্থ্যবিধি মেনে ব্যবসা করার দাবিও জানান তারা।

 

পঞ্চগড় নির্বাহি ম্যাজিস্ট্রেট বলেন, সরকারের সিদ্ধান্ত অমান্য করে ব্যবসায়ীরা দোকান খুলতে চান। করোনা নিয়ন্ত্রণে আনতে সবাইকেই সরকারের সিদ্ধান্ত মানতে হবে। শপিং মল খোলা রাখার কোনো সুযোগ নেই। এদিকে, লকডাউনের প্রথম দিনে পঞ্চগড়ে বিভিন্ন এলাকায় ব্যাপক জন সমাগম দেখা গেছে। অনেকে মাস্ক পড়লেও শারীরিক দুরত্বের বোঝায় ছিল না। কেউ কেউ মাস্ক পড়ছেন আগের মতোই থুতনিতে।

 

সকাল থেকেই পঞ্চগড়েএ মার্কেট, বন্ধ থাকলেও মুদিখানা, কাঁচাবাজার ও পাড়া-মহল্লার দোকানগুলো খোলা রাখা হয়। বন্ধ রাখা হয় শুধু বড় বড় শপিং মল। লক ডাউনে শহরে অটো রিকশা চলছে স্বাভাবিকভাবেই।

 

এরপরে পুলিশের কর্মকর্তারা জানান পরিস্থিতি পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের বলেন, মার্কেট ও বিপণীবিতান গুলো রাত থেকেই বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। দুর পাল্লার গাড়িও বন্ধ করা হয়েছে। জনগণ কে ঘরের বাইরে প্রয়োজন ছাড়া বের হতে নিষেধ করা হচ্ছে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *